সাম্প্রতিক কার্যক্রম :
ওয়ান হেলথ গ্লোবাল লিডার্স গ্রুপ অন এন্টি মাইক্রোবিয়াল রেজিস্ট্যান্স ফোরামের কো-চেয়ার মনোনীত হওয়ায় মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে র‌্যাব ফোর্সেস এর পক্ষ থেকে আন্তরিক অভিনন্দন। ✱ র‌্যাবের অভিযানে চট্টগ্রাম জেলার সীতাকুন্ড থানাধীন ভাটিয়ারী এলাকায় অভিযান চালিয়ে ৯,৭১০ পিস ইয়াবাসহ ০২ জন মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার। মাদক পরিবহণে ব্যহৃত একটি ট্রাক জব্দ। ✱ র‌্যাবের অভিযানে চট্টগ্রাম জেলার হাটহাজারী থানাধীন চন্দ্রাবিল এলাকায় চাঞ্চল্যকর লেগুনা চালক নাজমুল হত্যা মামলার অন্যতম প্রধান আসামী ইমন (২৩) কে কক্সবাজারের সেন্টমার্টিন দ্বীপ থেকে গ্রেফতার। ✱ চট্টগ্রাম ও কক্সবাজারের উপকূলীয় অঞ্চলের জলদস্যুদের অস্ত্র ও গোলাবারুদসহ র‌্যাবের তত্ত্বাবধানে মাননীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর নিকট আত্মসমর্পণ ✱ র‌্যাবের অভিযানে ঢাকা মহানগরীর পল্টন ও যাত্রাবাড়ী থানাধীন এলাকা হতে দুটি পৃথক পৃথক অভিযানে সর্বমোট ১৫৫০ বোতল ফেন্সিডিলসহ ০৬ জন মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার। ✱ র‌্যাবের অভিযানে রাজশাহী কর্তৃক ০১ কেজি ৯৮০ গ্রাম হেরোইন উদ্ধারসহ ০১ জন শীর্ষ মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার। ✱ র‌্যাবের অভিযানে কক্সবাজার জেলার চকরিয়া থানাধীন হারবাং এলাকায় অভিযান চালিয়ে ২৪,৪৫৫ পিস ইয়াবাসহ ০৩ জন মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার। ✱ র‌্যাবের অভিযানে এসএমপির এয়ারপোর্ট থানার স্টেডিয়াম এলাকা থেকে ৩০০ লিটার মদ জব্দসহ মাদক কারবারি গ্রেফতার। ✱ র‌্যাবের অভিযানে নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁও নয়াবাড়ী কাঁচপুর এলাকা হতে চাঁদাবাজ চক্রের ০৩ জন সক্রিয় সদস্য গ্রেফতার। ✱ র‌্যাবের অভিযানে রাজধানীর পল্লবী থেকে সাভার থানার চাঞ্চল্যকর ডাকাতি মামলার মূলহোতাকে বিদেশি পিস্তল ও গুলিসহ গ্রেফতার। ✱

আর এন্ড ডি সেল

রিসার্চ এন্ড ডেভেলপমেন্ট সেল র‌্যাব ফোর্সেস এর গবেষণা কার্যক্রম পরিচালনার জন্য দায়িত্বপ্রাপ্ত শাখা। অপরাধের কারণ অনুসন্ধান, অপরাধীদের মনস্তাত্মিক বিশেষণ, অপরাধ কার্যক্রমের গতি প্রকৃতিতে সমসাময়িক সামাজিক ও রাজনৈতিক প্রেক্ষাপটের প্রভাব, অপরাধী এবং বিভিন্ন ধরনের অপরাধের শিকার ভুক্তভোগীদের শ্রেণী, পেশা,  লিঙ্গ ও অঞ্চলভিত্তিক শ্রেণীবিন্যাসকরণ, বিভিন্ন অপরাধমূলক কার্যক্রমের পার¯পরিক সম্পর্ক বিশে‘ষণ এবং বিভিন্ন অপরাধমূলক কার্যক্রমের ভবিষ্যৎ রূপ ও প্রবণতা নিরূপণের পাশাপাশি র‌্যাব ফোর্সেস এর প্রতিষ্ঠানিক সক্ষমতা ও আভিযানিক কার্যক্রমের ফলপ্রসূতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে এ সেলে নিরন্তর গবেষণা র্কাযক্রম পরিচলনা করা হয়। প্রথিতযশা বিভিন্ন গবেষণা প্রতিষ্ঠানকে আউটসোর্সিং এর মাধ্যমে অত্র সেলের গবেষণা কার্যক্রমে সম্পৃক্ত করে অধ্যাবদি মোট সাতটি বিশেষ গবেষণা কার্যক্রম পরিচালিত হয়েছে, যার মধ্যে পাঁচটি গবেষণার ফলাফল পুস্তিকা আকারে ইতোমধ্যে প্রকাশিত হয়েছে । 

    এ সেলের তত্ত্বাবধানে এ পর্যন্ত পরিচালিত উলে‘খযোগ্য গবেষণা কার্যক্রমসমূহ হলোঃ

১।    বাংলাদেশে সহিংস চরমপন্থা- যুবসমাজের উপলব্ধি অন্বেষণ

২।    Violent Extremism and Law Enforcement Agencies (LEAs) in Bangladesh - A Perception Study  

৩।    কতিপয় বিষয়ে জঙ্গিবাদীদের অপব্যাখ্যা এবং পবিত্র কুরআনের সংশ্লিষ্ট আয়াত ও হাদীসের সঠিক ব্যাখ্যা 
   
৪।    An Assessment of the Socio-Cultural and Political Factors Driving 'Religion- Based' Violent        Extremism' in Some Selected Northern Districts of Bangladesh

৫।   A Study on the Piracy in the Sundarban

৬।     সাম্প্রতিক অপরাধচিত্রঃ ভয়ংকর ও নিষ্ঠুর প্রবণতা, একটি সমীক্ষা

৭।    Factors Contributing Terrorism: Arms and Drug Trade Meet on Border

সর্বনাশা মাদক, জঙ্গীবাদ এবং উগ্রসাম্প্রদায়িক মৌলবাদসহ বাংলাদেশের আইনশৃঙ্খলা বিঘ্নকারী বিভিন্ন অপরাধ দমনের লক্ষ্যে র‌্যাব ফোর্সেস এর প্রাতিষ্ঠানিক দক্ষতা বৃদ্ধি, স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতা জোরদারকরণ, সুশাসন সংহতকরণ  এবং সম্পদের যথাযথ ব্যবহার নিশ্চিতকরণের প্রত্যয়ে মহাপরিচালক, র‌্যাব ফোর্সেস এবং ইন্সপেক্টর জেনারেল, বাংলাদেশ পুলিশ এর মধ্যে বাৎসরিক ভিত্তিতে কর্মসম্পাদন চুক্তি Annual Performance Agreement (APA) Annual Performance Agreement (APA) স্বাক্ষরিত হয়। এই চুক্তি প্রণয়ন ও বাস্তবায়ন অগ্রগতি নিরীক্ষনের যাবতীয় দায়িত্ব আর অ্যান্ড ডি সেল সুচারুরূপে পালন করে থাকে । এছাড়াও বাংলাদেশে মাদকসন্ত্রাস ও মাদকদ্রব্যের বাণিজ্য নির্মূলে র‌্যাব ফোর্সেস এর Strategic Plan 2018-2020এবং Comprehensive Operational Plan প্রণয়নে আর অ্যান্ড ডি সেল অনবদ্য ভূমিকা পালন করেছে।


প্রতিষ্ঠালগ্ন হতে অদ্যাবধি র‌্যাব ফোর্সেসের অনেক সম্ভাবনাময় প্রাণ এই প্রতিষ্ঠানের স্বার্থে আত্মউৎসর্গ করেছেন যাদের ঋণ অপরিমেয় ও অপরিশোধ্য। শহীদদের প্রতি প্রাতিষ্ঠানিক শ্রদ্ধা ও সম্মাননা প্রদানের ক্ষুদ্র প্রয়াস হিসেবে মহাপরিচালক, র‌্যাব ফোর্সেস মহোদয়, প্রতিবছর র‌্যাব ফোর্সেস এর প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে সকল শহীদ পরিবারের জন্য সম্মাননা ও আর্থিক অনুদানের যে মহৎ উদ্যোগ নিয়ে থাকেন তার সার্বিক সমন্বয়ের ভূমিকা পালন করে আর অ্যান্ড ডি সেল। বাংলাদেশের দূর-দুরান্তের বিভিন্ন প্রান্তে বসবাসকারী এ সকল শহীদ পরিবারের অতিথিদের নিমন্ত্রিত করা, আনুষ্ঠানে আগত অতিথিদের জন্য মানসম্মত বিশ্রামাগারের ব্যবস্থা, সর্বোচ্চ আপ্যায়ন, মহাপরিচালক, র‌্যাব ফোর্সেস মহোদয়ের সাথে সৌজন্য সাক্ষাতের আনুষ্ঠানিক ব্যবস্থা গ্রহণসহ অতিথিদের নিরাপদে স্বীয় আবাসে পৌঁছে দেওয়ার কাজে আর অ্যান্ড ডি সেল মূখ্য ভূমিকা পালন করে থাকে।