সাম্প্রতিক কার্যক্রম :
র‌্যাব-২ এর পৃথক অভিযানে রাজধানীর পল্লবী হতে কিশোর গ্যাং এর ০৮ সদস্য দেশীয় অস্ত্রসহ গ্রেফতার। ✱ র‌্যাব-১১ এর অভিযানে রূপগঞ্জ হতে ০১ কেজি গাঁজাসহ ২ মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার ✱ চাঞ্চল্যকর “নুসরাত জাহান” হত্যা মামলার এজাহার ভুক্ত পলাতক আসামীকে রাজধানীর দারুস সালাম থানা এলাকা হতে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-২ ✱ পটুয়াখালীর গলাচিপায় র‌্যাবের হাতে ০২(দুই) কেজি গাঁজাসহ একজন গাঁজা ব্যবসায়ী গ্রেফতার। ✱ বিয়ে ও চাকরির প্রলোভন দেখিয়ে আটকে রেখে জোর পূর্বক ধর্ষণ করার অপরাধে ০৪ জন ধর্ষণকারীকে আটক করেছে র‌্যাব-৭, চট্টগ্রাম। ✱ র‌্যাব ৯ এর অভযিানে এসএমপরি কোতোয়ালী থানা এলাকা থকেে ইয়াবাসহ পশোদার মাদক কারবারি গ্রফেতার। ✱ র‌্যাব ৯ এর অভিযানে মৌলভীবাজার জেলার রাজনগর থানা এলাকা থেকে গাঁজাসহ পেশাদার মাদক কারবারি গ্রেফতার। ✱ আন্তর্জাতিক মানের বিজ্ঞানীর ভূয়া পরিচয়ে স্ব—উদ্ভাবিত জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাব—প্রতিকার, পাওয়ার প্ল্যান্ট প্রজেক্ট, করোনা প্রতিরোধ ব্যবস্থা ও অন্যান্য প্রজেক্ট বাস্তবায়নের নামে কোটি কোটি টাকা ও জমি আত্মসাতকারী চক্রের মূলহোতা সাইফুল ইসলাম @বিজ্ঞনী সাইফুল @সায়েন্টিস্ট সাইফুল সহ ১৬ জনকে ঢাকা ও টাঙ্গাইল এর বিভিন্ন স্থান থেকে অস্ত্র ও মাদকসহ গ্রেফতার করেছে র‌্যাব। ✱ র‌্যাবের অভিযানে ঢাকার দক্ষিণ কেরাণীগঞ্জ হতে অপহৃত হওয়া ভিকটিম উদ্ধার ও ০৭ অপহরণকারী গ্রেফতার। ✱ র‌্যাব ৯ এর অভিযানে সুনামগঞ্জ জেলার সদর থানা এলাকা থেকে বিদেশী মদসহ পেশাদার মাদক কারবারি গ্রেফতার। ✱

র‌্যাব-৩ এর অভিযানে রাজধানীর ফকিরাপুল এলাকা হতে প্রেস কর্মচারী রাসেল হত্যাকান্ডের মূল আসামী রক্তমাখা ছুরিসহ গ্রেফতার

প্রকাশের তারিখ : ১২-০৫-২০২১

গত ১১ মে ২০২১ তারিখে ২০৩০ ঘটিকায় মতিঝিল থানাধীন আরামবাগ হাই স্কুলের সামনে প্রেসের কর্মচারী রাসেল (২২) কে ডেকে নিয়ে তার বন্ধু শাকিল (২২) ছুরিকাঘাতে নির্মমভাবে হত্যা করে। উক্ত ঘটনার সংবাদ পাওয়ার পর  র‌্যাব-৩ এর  কুইক রেসপন্স টিম তাৎক্ষণিক গোয়েন্দা নজরদারী শুরু করে। এরই ধারাবাহিকতায় র‌্যাবের আভিযানিক দল ১২ মে ২০২১ তারিখ রাত ০১০০ ঘটিকায় রাজধানীর ফকিরাপুলস্থ আল-আকাসা আবাসিক হোটেলে  অভিযান পরিচালনা করে রাসেল হত্যাকান্ডের মূল হোতা মোঃ শাকিল (২২), পিতা- মোঃ হযরত আলী বেপারী, মাতা- মোসা পারভিন বেগম, গ্রাম-চর আবাবিল, থানা- সদর, জেলা-  লক্ষীপুর কে  রক্তমাখা ছুরিসহ গ্রেফতার করতে সক্ষম হয়।
    
    প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে ধৃত শাকিল জানায় ভিকটিম রাসেল ও সে ঘনিষ্ঠ বন্ধু । শাকিল আরামবাগ এলাকার সাহারা প্রিন্টিং প্রেসের কর্মচারী হিসেবে কাজ করত। গত ১৮ ই এপ্রিল ২০২১ তারিখ মৃত ভিকটিম রাসেলের বান্ধবীর উপস্থিতিতে রাসেল ও শাকিলের মধ্যে মতানৈক্যের সৃষ্টি হয়। সেখানে রাসেল শাকিলের বন্ধুদের সামনে তাকে অপমান করে। উক্ত ঘটনা থেকে তাদের মধ্যে শত্রুতা তৈরী হয়।  উক্ত ঘটনাটি মীমাংসা করার জন্য  গত ১১ মে ২০২১ তারিখে ধৃত আসামী রাসেলকে মতিঝিল থানাধীন আরামবাগ হাই স্কুলের সামনে ডেকে নিয়ে আসে। রাসেলকে শায়েস্তা করার জন্য ধৃত শাকিল পূর্ব পরিকল্পনা অনুযায়ী প্যান্টের পকেটে করে ছুরি নিয়ে আসে। ঘটনাটি মীমাংসা কালে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে উত্তেজিত হয়ে পূর্ব পরিকল্পনা অনুযায়ী প্যান্টের পকেটে থাকা ছুরি দিয়ে সে রাসেলকে নির্মমভাবে আঘাত করে। রাসেলের রক্ত ক্ষরণ শুরু হলে শাকিল ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে আল-আকাসা আবাসিক হোটেলে অবস্থান নেয় । আহত রাসেলকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসকরা তাকে মৃত ঘোষণা করে।