সাম্প্রতিক কার্যক্রম :
র‌্যাবের অভিযানে রাজধানীর তুরাগ এলাকা হতে অবৈধ অস্ত্র, জাল নোট ব্যবসা ও চাঁদাবাজিসহ বিভিন্ন সন্ত্রাসী কর্মকান্ডের সাথে জড়িত আব্দুল মালেক @ ড্রাইভার মালেক (৬৩) গ্রেফতার \ বিপুল পরিমান জাল নোটসহ ০১ টি বিদেশী পিস্তল উদ্ধার। ✱ র‌্যাবের অভিযানে সাভার ও আশুলিয়া এলাকায় র‌্যাবের পৃথক অভিযানে ৪৩২ ক্যান বেলজিয়ান বিয়ারসহ ২ জন ও ৩১৬ পিস ট্যাপেন্টাডলসহ ৩ জন গ্রেফতার। ✱ র‌্যাবের অভিযানে আশুলিয়ার পল্লীবিদ্যুৎ এলাকা হতে অস্ত্র ও গুলিসহ ১ জন অস্ত্রধারী সন্ত্রাসী গ্রেফতার। ✱ র‌্যাবের অভিযানে চট্টগ্রাম মহানগরীর বাকলিয়া থানাধীন নতুন ব্রীজ গোল চত্ত¡র এলাকায় অভিযান চালিয়ে ১৩,৫৩০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেটসহ ০২ জন মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেফতার মাদক পরিবহনে ব্যবহৃত একটি যাত্রীবাহী বাস জব্দ। ✱ র‌্যাবের অভিযানে নারায়ণগঞ্জের বন্দর হতে দেশীয় ধারালো অস্ত্র ও ইয়াবা উদ্ধারসহ ০৫ জন গ্রেফতার। ✱ চট্টগ্রাম মহানগরীর কোতয়ালী থানাধীন স্টেশন রোড এলাকায় অভিযান চালিয়ে ৩.৬৯০ কেজি ওজনের একটি কষ্টি পাথরের মূর্তি উদ্ধারসহ ০১ জন চোরাকারবারী’কে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-৭। ✱ র‌্যাবের অভিযানে সিলেট জেলার কোম্পানীগঞ্জ থানার খাগাইল গ্রাম থেকে ১৪৫ পিস ইয়াবাসহ মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার। ✱ র‌্যাবের অভিযানে কুমিল্লা জেলার কোতয়ালী থানাধীন রাজগঞ্জ বাজার এলাকা হতে ৩,২৪,৮২৫ পিচ চোরাই বিদেশী সিগারেটসহ ০৩ জন চোরাকারবারী গ্রেফতার। ✱ র‌্যাবের অভিযানে রাজধানীর দারুস সালাম থানাধীন কল্যানপুর এলাকা হতে ১১৯ ক্যান বিয়ারসহ ১ জন মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেফতার। ✱ র‌্যাব-৮, সিপিসি-১(পটুয়াখালী ক্যাম্প) কর্তৃক বরগুনার আমতলী উপজেলা হতে ওয়ারেন্ট ভুক্ত পলাতক একজন আসামী গ্রেফতার ✱

মহাপরিচালক, র‌্যাব ফোর্সেস এর বক্তব্য

প্রকাশের তারিখ : ৩০-০৭-২০২০

প্রিয় সাংবাদিকবৃন্দ,
আসসালামু আলাইকুম,

১।    সবাইকে পবিত্র ঈদ-উল-আযহার অগ্রিম শুভেচ্ছা জানিয়ে শুরু করছি। সামনেই আমাদের শোকের মাস আগস্ট। শোকাবহ আগস্টের প্রাক্কালে আমি সশ্রদ্ধ চিত্তে স্মরণ করছি হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙ্গালী, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এবং ১৫ই আগস্টের শাহাদত বরণকারী সকল শহীদদের। 

২।    আমি আরও স্মরণ করছি বাংলাদেশে প্রাণঘাতি করোনা ভাইরাস সংক্রামনে বিভিন্ন শ্রেণীর পেশার এবং আইনশৃঙ্খলা বাহিনীসহ আমাদেরও মৃত্যুবরণকারী র‌্যাব সদস্যদের; আমি সকলের বিদেহী আত্মার মাগফেরাত কামনা করছি এবং শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা প্রকাশ করছি।

৩।    করোনা ভাইরাসের শুরু থেকেই করোনা ভাইরাস সংক্রমণ রোধে র‌্যাব দেশ প্রেমে উজ্জীবিত হয়ে পেশাগত সর্বোচ্চ উৎকর্ষতা দেখিয়েছে। দেশের আইনশৃঙ্খলা রক্ষা, সংক্রমণ দায়িত্ব পালন ও মানবিক উদ্যোগ গ্রহণের মাধ্যমে আমরা দেশমাতৃকার সেবায় নিয়োজিত আছি। 

৪।    করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে সম্মুখ থেকে যে সমস্ত চিকিৎসক, নার্স, সাংবাদিক, আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্য, বিশেষ করে জন প্রতিনিধি ও অন্যান্য পেশাজীবিরা দেশ ও মানব প্রেমে জাগ্রত হয়ে কাজ করে যাচ্ছে তাদের প্রতি আমার বিশেষ শ্রদ্ধা ও কৃতজ্ঞতা।

প্রিয় বন্ধুগণ,

৫।    আপনারা নিশ্চয়ই অবগত আছেন, ঈদ-উল-ফিতর এর ন্যায় আমরা ভিন্ন প্রেক্ষাপটের মধ্য দিয়ে পবিত্র ঈদ-উল-আযহা উদ্যাপন করতে যাচ্ছি। আমরা সবাই প্রতিনিয়ত লড়াই করে যাচ্ছি প্রাণঘাতি করোনা ভাইরাসের বিরুদ্ধে। সম্প্রতি বাংলাদেশে করোনা সংক্রমণের মধ্যেই বন্যা পরিস্থিতির অবনতি ঘটেছে; প্লাবিত হয়েছে দেশের উত্তরাঞ্চল ও হাওর বেষ্টিত কয়েকটি জেলা। বন্যায় জনগণের ব্যাপক জান-মালেরও ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। ঈদ-উল- আযহায় ত্যাগের মহিমায় উজ্জীবিত হয়ে আসুন আমরা ক্ষতিগ্রস্তদের পাশে দাঁড়াই।  

ঈদ-উল-আযহায় র‌্যাবের দায়িত্বপালন

৬।    পবিত্র ঈদ-উল-আযহা ইসলাম ধর্মাবল¤¦ীদের একটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ও উৎসবমুখর ধর্মীয় অনুষ্ঠান। এই উৎসবকে কেন্দ্র করে পশুর হাট, কোরবানী, ঈদের জামায়াত, চামড়া বেচা-কেনাসহ বেশ কিছু কার্যক্রম পরিচালিত হয়। এক্ষেত্রে যে কোন অপতৎপরতা রুখতে সচেষ্ট রয়েছে এলিট ফোর্স র‌্যাব। 

৭।    ঈদ-উল-আযহা ২০২০ উদ্যাপন উপলক্ষ্যে সার্বিক আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাখতে অন্যান্য আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর পাশাপাশি র‌্যাবও দায়িত্ব পালন করছে। গত ২২ জুলাই ২০২০ হতে আগামী ০৬ আগস্ট ২০২০ তারিখ পর্যন্ত ঈদ-উল-আযহা উপলক্ষে র‌্যাব দায়িত্ব পালন করবে। এক্ষেত্রে আমরা তিনটি পর্যায়ে যথাক্রমে প্রাক, সময়কালীন ও পরবর্তী ভাগ করে নিরাপত্তা সাজিয়েছি।

৮।    ঈদ-উল-আযহা উপলক্ষ্যে কোরবানির পশুর হাটে ক্রয়-বিক্রয়ের জন্য ব্যাপক জনসমাগম হয়। পশুর হাটগুলোতে যাতে সামাজিক দুরত্ব বজায় রেখে এবং সার্বিক স্বাস্থ্য সুরক্ষা মেনে ক্রেতা বিক্রেতারা ক্রয় বিক্রয় করতে পারে এ ব্যাপারে হাট পরিচালনা কমিটিকে প্রয়োজনীয় নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। এ ব্যাপারে সকলের সহযোগীতা একান্ত কাম্য।

৯।    কোরবানীর হাটে পশু ক্রয়/বিক্রয়ে প্রচুর আর্থিক লেনদেন হয়। এক্ষেত্রে অসাধু ব্যক্তি বা মাধ্যমে জালটাকার ছড়াছড়ির আশংকা থাকে। হাটগুলোতে জাল টাকা সনাক্তে আমরা হাটে স্থাপিত র‌্যাব ক্যাম্প এবং র‌্যাবের টহল গুলোতে জাল নোট সনাক্তের মেশিন স্থাপন করে সহায়তা করছি। আমি সবাইকে র‌্যাবের এই সেবা গ্রহণ করতে অনুরোধ করবো। ইতোমধ্যে র‌্যাব গত ২৯ জুন ২০২০ তারিখে রাজধানীর মিরপুরে  এবং ভাটারা এলাকা হতে প্রায় ৪ কোটি (১০০০ টাকার নোট ) জাল টাকা এবং ৪০ লক্ষ ভারতীয় রুপিসহ সংঘবদ্ধ চক্রের ০৬ সদস্যকে গ্রেফতার করা হয়।  

১০।    এছাড়া এ সময়ে চুরি-ডাকাতি, ছিনতাই, প্রতারক চক্র, দালাল, মলম পার্টি এবং অজ্ঞান পার্টির তৎপরতা বৃদ্ধি পাওয়ার সম্ভাবনা থাকে। এসব অনাকাঙ্খিত ঘটনা রুখতে র‌্যাবের গোয়েন্দা নজরদারি বৃদ্ধি করা হয়েছে। গুরুত্বপূর্ণ পশুর হাট গুলোতে আমাদের অস্থায়ী ক্যাম্প সমূহ তৎপর রয়েছে।

১১।    আমরা যানবাহনে নিরাপত্তা তল্লাশী চালাচ্ছি। ঢাকামুখী পশু বহনে চাঁদাবাজী রুখতে আমাদের নজরদারী রয়েছে। মোবাইল টহল পরিচালিত হচ্ছে সড়ক পথে নিরাপত্তা বিধানে।

১২।    ঢাকা শহরের বিভিন্ন পশুর হাটে সন্ধ্যাকালীন ব্যাংকের বুথ স্থাপন করা হয়েছে। এসব বুথে আমাদের নজরদারীতে  রয়েছে। এছাড়া আপনারা জানেন অনলাইনে প্রচুর কোরবানী পশু কেনা বেচা হচ্ছে। এ ক্ষেত্রে অনলাইনে র‌্যাব সাইবার টিম ভার্চুয়াল জগতে নজরদারী করছে। অনলাইনে পশু কেনা বেচার লেনদেনের ক্ষেত্রে সর্তকতা অবলম্বনের জন্য আমরা পরামর্শ দিচ্ছি। 

১৩।    পশুর হাট/তৎসংলগ্ন এলাকায় র‌্যাবের নিয়মিত টহলের পাশাপাশি যে কোন অনাকাঙ্খিত ঘটনা রোধকল্পে আশে পাশের এলাকায় র‌্যাবের গোয়েন্দা নজরদারি বৃদ্ধি করা হয়েছে এবং সাদা পোশাকে বিভিন্ন জনবহুল ও গুরুত্বপূর্ণ স্থানসমূহে গোয়েন্দা কার্যক্রম জোরদার করা হয়েছে।

১৪।    শহরের প্রবেশ/বাহির পথসমূহ ও গুরুত্বপূর্ণ স্থানে মাঝে মাঝে মোবাইল চেকপোষ্ট স্থাপন করে তল্লাশী অভিযান পরিচালনা করা হচ্ছে। গমনাগমনের নিরাপত্তা দিতে আমরা বাস, রেল, ফেরী ঘাটে অস্থায়ী ক্যাম্প স্থাপন করেছি।

১৫।    ঈদ-উল-আযহা উপলক্ষে গার্মেন্টস শ্রমিকদের বেতন ও বোনাস পরিশোধের বিষয়ে আমি গার্মেন্টস ও তাদের সংগঠনের প্রতি দৃষ্টি আকর্ষণ করছি। কারণ ঈদের পূর্বে গার্মেন্টস সমূহে শ্রমিকদের মাঝে এ বিষয়ে অসন্তেুাষ সৃষ্টি হয়। এতে বিশৃঙ্খলাসহ আইন-শৃঙ্খলার পরিস্থিতির অবনতি ঘটার সম্ভাবনা থাকে। 

১৬।    গত ঈদের ন্যায় এবারও ঈদের জামাত মসজিদে অনুষ্ঠিত হবে। এক্ষেত্রে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে আমি সকলকে অনুরোধ করবো। গুরুত্বপূর্ণ ঈদের জামায়াতের স্থান গুলোতে আমরা অতিরিক্ত ফোর্স মোতায়েন করব। সার্বিকভাবে গোয়েন্দা নজরদারী অব্যাহত থাকবে। 

১৭।    ঈদের সময় বদ্ধ হওয়া মার্কেট, ব্যাংকসহ অন্যান্য প্রতিষ্ঠানের চুরি-ডাকাতির প্রবণতা বৃদ্ধি পাওয়ার সম্ভাবনা থাকে। এ ব্যপারে বিশেষ বিশেষ এলাকাগুলোতে র‌্যাবের নিয়মিত টহল বাড়ানো হয়েছে। আমাদের উপস্থিতি দৃশ্যমান থাকবে।

১৮।    যেকোন সন্ত্রাসী ও নাশকতা কার্যক্রম রুখতে আমরা সর্বোচ্চ সতেষ্ঠ আছি। অনলাইনে আমরা জঙ্গি কার্যক্রম মনিটরিং করছি। সারাদেশে গোয়েন্দা নজরদারী অব্যাহত আছে। এ ব্যাপারে আমাদের সর্তক দৃষ্টি রয়েছে।  

১৯।    যে কোন নাশকতা/অপ্রীতিকর পরিস্থিতি মোকাবেলার জন্য পর্যাপ্ত রিজার্ভ ফোর্স প্রস্তুত রাখা হয়েছে। সমস্ত দেশব্যাপী দেড় শতাধিক (১৬৬টি) মোবাইল চেকপোস্ট এবং ১৩টি অস্থায়ী ক্যাম্প পরিচালনা করছি। এছাড়া র‌্যাব কমান্ডো, ডগ স্কোয়াড, বোম্ব স্কোয়াড এবং হেলিকপ্টার প্রস্তুত রয়েছে।

২০।    ঈদ-উল-আযহা উপলক্ষ্যে যান চলাচলে  সড়ক, রেল এবং  নৌ-পথে নানাবিধ নিরাপত্তা উদ্দোগ গ্রহণ করা হয়েছে। নৌ চলাচলে আবহাওয়ার প্রতিকূলতার বিষয়টি গুরুত্ব  দেওয়ার জন্য জনসাধারণকে অনুরোধ জানাব।

২১।    যেকোন উদ্ভুদ্ধ পরিস্থিতি মোকাবেলায় প্রস্তুত রয়েছে এলিট ফোর্স  র‌্যাব। 


সকলকে অগ্রীম ঈদ মোবারক।
 

আরও সাম্প্রতিক কার্যক্রম