Home » News Room » র‌্যাবের অভিযানে রাজধানীর মোহাম্মদপুর থানাধীন ইকবাল রোডস্থ বায়তুস সালাম জামে মসজিদের সামনে হতে লিফলেট বিতরনের সময় নিষিদ্ধ জঙ্গি সংগঠন হিজবুত তাহরীরের ০১ জন সক্রিয় সদস্য গ্রেফতার।

র‌্যাবের অভিযানে রাজধানীর মোহাম্মদপুর থানাধীন ইকবাল রোডস্থ বায়তুস সালাম জামে মসজিদের সামনে হতে লিফলেট বিতরনের সময় নিষিদ্ধ জঙ্গি সংগঠন হিজবুত তাহরীরের ০১ জন সক্রিয় সদস্য গ্রেফতার।

১।    এলিট ফোর্স র‌্যাব সৃষ্টির সূচনালগ্ন থেকেই জঙ্গি ও সন্ত্রাসবাদ এর বিরুদ্ধে আপোষহীন অবস্থানে থেকে নিরলসভাবে কাজ করে আসছে। র‌্যাবের কর্ম তৎপরতার কারণেই সারাদেশে একযোগে বোমা বিস্ফোরণসহ বিভিন্ন সময়ে নাশকতা সৃষ্টিকারী জঙ্গি সংগঠন সমূহের শীর্ষ সারির নেতা থেকে শুরু করে বিভিন্নস্তরের নেতা কর্মীদেরকেও গ্রেফতার করে আইনের আওতায় আনা সম্ভবপর হয়েছে। আটককৃতদের মধ্যে কারো কারো মৃত্যুদন্ড, যাবজ্জীবন কারাদন্ড হয়েছে, কেউ কেউ বিভিন্ন মেয়াদে কারাভোগ করেছে এবং বেশকিছু মামলা এখনো বিচারাধীন। তবে, যে সকল জঙ্গি এখনো আত্মগোপন করে আছে তাদের তৎপরতা একেবারে বন্ধ হয়ে যায়নি। র‌্যাবের কঠোর গোয়েন্দা নজরদারী ও অভিযানের ফলে নিষিদ্ধ ঘোষিত জঙ্গি সংগঠনগুলোর নেতা কর্মীরা পূনরায় সংগঠিত হওয়ার চেষ্টা চালিয়ে বার বার ব্যর্থ হয়েছে এবং বিভিন্ন আইন প্রয়োগকারী সংস্থার হাতে আটক হয়েছে।

২।    এরই ধারাবাহিকতায় গোপন সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাব-২ এর একটি আভিযানিক দল গত ০৮ সেপ্টেম্বর ২০১৭ তারিখ ১৪:২৫ ঘটিকায় ডিএমপি ঢাকার মোহাম্মদপুর থানাধীন ইকবাল রোডস্থ বায়তুস সালাম জামে মসজিদের সামনে অভিযান চালিয়ে সরকার কর্তৃক নিষিদ্ধ ঘোষিত সংগঠন হিযবুত তাহরীর এর কতিপয় সদস্য নিষিদ্ধ সংগঠনকে সমর্থনের উদ্দেশ্যে সমবেত হয়ে সদস্য সংগ্রহ এবং রাষ্ট্র বিরোধী লেখা স¤¦লিত লিফলেট জনসাধারনের মাঝে বিতরন করাকালীন হিযবুত তাহরীর এর সক্রিয় সদস্য মোঃ মাহামুদুল হাসান রবিন (২৫), পিতা- মোঃ নুরুল আমীন, সাং-ছোট ভল্লবপুর, থানা- চন্দ্রগঞ্জ, জেলা-লক্ষীপুরকে গ্রেফতার করে। গ্রেপ্তারকৃত আসামীকে জিজ্ঞাসাবাদে জানায় যে, সে ২০০৯  সালে ঢাকা রেসিডেনসিয়াল মডেল স্কুল হতে এস, এস, সি পাশ করে নটরডেম কলেজ ঢাকায় ভর্তি হয়। উক্ত কলেজে পড়ার সময় তার পূর্বের ব্যাচের ছাত্র জাকারিয়ার সান্নিধ্যে আসে এবং ধীরে ধীরে জাকারিয়ার হাত ধরে ধর্মীয় উগ্রপন্থার সাথে পরিচিত হতে থাকে। শুধু তাই নয় এক পর্যায়ে মাহমুদুল হাসান রবিন নিষিদ্ধ ঘোষিত সংগঠন হিযবুত তাহরীরের প্রাথমিক সদস্যপদ লাভ করে। পরবর্তীতে ২০১১ সালে এইচ, এস, সি পাশ করে উক্ত সংগঠনের সমস্ত কার্যক্রমের সাথে নিজেকে ওতোপ্রোত ভাবে জড়িয়ে নেয়। সংগঠনের নির্দেশনা অনুযায়ী নতুন সদস্য সংগ্রহের জন্য তার নিজ এলাকায় চলে যায় এবং উক্ত সংগঠনের বড় ভাই ও গুরুত্বপূর্ন সদস্য জাকারিয়ার নির্দেশে বিভিন্ন সময় ঢাকায় এসে অন্যান্য সদস্যদের সাথে রাষ্ট্র ও সরকার বিরোধী বিভিন্ন কাজে অংশ গ্রহন করত। গত ০৬-০৯-২০১৭ ইং তারিখে হিযবুত তাহরীর এর গুরুত্বপূর্ন সদস্য জাকারিয়া ফোনে মাহমুদুল হাসান রবিনকে ঢাকায় আসতে বলে। সে অনুযায়ী  ০৭-০৯-২০১৭  তারিখে রবিন ঢাকায় আসে এবং একটি মসজিদে রাত্রি যাপন করে। সংগঠনের পরিকল্পনা ও জাকারিয়ার নির্দেশনা অনুযায়ী ০৮-০৯-২০১৭ তারিখে ১৩:৫৫ ঘটিকায় মোহাম্মদপুর থানাধীন বায়তুস সালাম জামে মসজিদের সামনে বাংলাদেশের অখন্ডতা, সংহতি, নিরাপত্তা, সার্বভৌমত্ব বিপন্ন করার লক্ষ্যে নিষিদ্ধ ঘোষিত জঙ্গী সংগঠন হিযবুত তাহরীর উলাইয়া বাংলাদেশ এর সমর্থন, সদস্যপদ গ্রহন, অন্যকেও  উক্ত সংগঠনে যোগদানের জন্য আহ্বান এবং রাষ্ট্র ও সরকার বিরোধী বিভিন্ন বক্তব্য লেখা লিফলেট বিতরন করে। গ্রেফতারকৃত আসামী মাহমুদুল হাসান রবিন জানায় ইতিপূর্বেও সে ঢাকা শহরের বিভিন্ন স্থানে হিযবুত তাহরীর এর এই গুরুত্বপূর্ন সদস্য জাকারিয়ার নেতৃত্বে রাষ্ট্র ও সরকার বিরোধী বিভিন্ন কার্যক্রমে সক্রিয়ভাবে অংশগ্রহন করেছে। উক্ত পলাতক জাকারিয়া ও অন্যান্য সহযোগীদের গ্রেফতারের লক্ষে র‌্যাব-২ বিভিন্ন স্থানে অভিযান অব্যাহত রেখেছে।

৩।    উপরোক্ত বিষয়ে আইনানুগ ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন।

র‌্যাব কর্তৃক প্রদত্ত পরামর্শ

***জমি জমা বা টাকা-পয়সা সংক্রান্ত কোন অভিযোগ র‌্যাব কর্তৃক গ্রহণ করা হয় না ।
***ব্যক্তিগত বা পারিবারিক কোন সমস্যা র‌্যাব কর্তৃক গ্রহণ করা হয় না ।
***কোন অভিযোগ করার পূর্বে আপনার এলাকার জন্য দায়িত্বপূর্ন র‌্যাব ব্যাটালিয়ন/ক্যাম্প সম্পর্কে জানুন ও যথাযথ র‌্যাব ব্যাটালিয়ন/ক্যাম্পে অভিযোগ করুন ।
***আপনার এলাকার চিহ্নিত সন্ত্রাসী, অস্ত্রধারী সন্ত্রাসী ও মাদক ব্যবসায়ীদের সম্পর্কে র‌্যাব কে তথ্য প্রদান করে র‌্যাবকে সহযোগীতা করুন । আপনার পরিচয় সম্প‍ুর্ন্ন গোপন রাখা হবে । ***বেশী করে গাছ লাগান অক্সিজেনের অভাব তাড়ান
***ছোট ছোট ছেলে-মেয়েদের আগুন নিয়ে খেলতে দিবেন না ।
***যাত্রা পথে অপরিচিত লোকের দেওয়া বিছু খাবেন না । ভ্রমণকালে সহযোগী বা অন্য কাহারো নিকট হইতে পান, বিড়ি, সিগারেট, চা বা অন্য কোন পানীয় খাওয়া/গ্রহন করা হইতে বিরত ‍থাকা আবশ্যক ।

সাম্প্রতিক ভিডিও